আন্তর্জাতিক খবর

বিদায়ী ভাষণে স্ত্রীর প্রশংসা করলেন, কাঁদলেন ওবামা

বণিক বার্তা অনলাইন | ১৪:৪৪:০০ মিনিট, জানুয়ারি ১১, ২০১৭

মার্কিন প্রেসিডেন্ট হিসেবে দুইবার দায়িত্ব পালন শেষে আগামী ২০ জানুয়ারি হোয়াইট হাউজ থেকে বিদায় নিতে যাচ্ছেন বারাক ওবামা। এই সময়ের মধ্যে নন্দিত যেমন হয়েছেন, তেমনি নিন্দুকেরাও পিছিয়ে থাকেনি। নিঃসন্দেহে টানা আট বছর একটি কঠিন সময় পার করতে হয়েছে তাকে।

এতকিছুর মধ্যেও ওবামার শক্তির সবচে বড় একটি উৎস ছিল তার পরিবার। প্রেসিডেন্ট হিসেবে শেষ বক্তব্যে সেই পরিবারের কথা বলতে ভোলেননি তিনি। বিদায়ী ফার্স্ট লেডি এবং স্ত্রী মিশেল ওবামার প্রতি জানিয়েছেন সম্মান। সারা পৃথিবীকে জানিয়েছেন, কীভাবে তার কাজে মিশেল সহকর্মী হয়ে ছিলেন।

আবেগপূর্ণ ওই বক্তব্যে স্ত্রী সম্পর্কে ওবামা বলেন, ‘সাউথ সাইডের মেয়ে মিশেল রবিনসন, গত ২৫ বছর ধরে তুমি শুধু আমার স্ত্রী আর আমার সন্তানদের মা-ই নও, তুমি আমার সবচে ভাল বন্ধু। আমাকে তুমি কিছু জিজ্ঞেস করে কখনো বিরক্ত করনি। সব কাজ নিজের মতো করে সবচে ভালভাবে শেষ করেছ।’

এসব কথা বলার সময় কেঁদে ফেলেন এই মার্কিন প্রেসিডেন্ট। প্রথম আফ্রিকান-আমেরিকান ফার্স্ট লেডি হিসেবে মিশেলের সহযোগিতার কথা উল্লেখ করে তিনি আরো বলেন, ‘তুমি হোয়াইট হাউজকে সার্বজনীন রূপ দিয়েছ। আর নতুন প্রজন্মের দৃষ্টিভঙ্গিও উন্নত করেছ। কারণ তুমি তাদের কাছে রোল মডেল। তুমি আমাকে গর্বিত করেছ। দেশকে গর্বিত করেছ।’

বাবার এসব কথা শুনতে শুনতে মায়ের পাশে বসে থাকা ওবামার বড় মেয়ে মালিয়াও কেঁদে ফেলে। এরপর নিজের দুই মেয়ে মালিয়া ও সাশার প্রশংসাও করেন তিনি। বলেন, ‘মালিয়া ও সাশা, নতুন পরিবেশে তোমরাও হয়ে উঠেছ দুই বুদ্ধিমতি তরুণী। এর চেয়েও গুরুত্বপূর্ণ তোমরা দয়ালু এবং চিন্তাশীল।’

মেয়েদের উদ্দেশ্যে ওবামা আরো বলেন, ‘বছরের পর বছর ধরে সব চাপ তোমরা সহজেই সহ্য করেছ। আমার জীবনে আমি যা করেছি, তার মধ্যে তোমাদের বাবা হতে পেরে সবচে বেশি গর্বিত।’

দুই মেয়ের সঙ্গে ওবামা

সূত্র: এবিসি নিউজ